Menu

প্রবাস বাংলা ভয়েস ডেস্ক ::‌

ভালোবাসা
কোথায় পাবো তারে?
> এই চিন্তা করে,
> শান্তির খোঁজে আমি আজীবন ভরে।
> পাপে তাপে পূর্ণ করেছি সারা জীবনটা,
> সবকিছু ছেড়ে এখন দুশ্চিন্তায় মনটা।

> ভাবছি বসে একা যখন মনটা বেশ ফাঁকা!
> পরিবর্তন হবার সুযোগটা যদি না পাই,
> তবে কেমন করে হবে জন্মের স্বার্থকথা!

> নতুন প্রিয়ার সনে হবে কী দেখা?
> কোথায় কখন শুধু জানতে মন চায়!
> ভালোবাসার সেতু যখন তৈরি হলো,
> পারাপারের সময় সে কোথায় গেলো?
> ধৈর্য ধরে আছি দেখি কি আছে কপালে লিখা।

> জন্ম হয়েছে আমার এই পৃথিবীতে,
> আলোর ফেরিওয়ালা হয়ে সাগরে এসেছি বেড়াতে।
> সাগরের পাশজুড়ে রয়েছে পাহাড়,
> কিভাবে পারি বলো তাকে এড়াতে?
> হাজার রকমের ফুল ফুটেছে সেখানে,
> অনেক ফুল ঝরে পড়েছে মাটিতে।
> তুলেছি ফুলগুলো দুহাত ভরে।
> জীবন ফুলশয্যা নয় শুনেছি আগে,
> তারপরও সেই ঝরা ফুলের উপর পরেছি শুয়ে।
> শুয়ে পরেই ঘুমিয়ে পরেছি,
> একটুও পাইনি টের।

> যাক না পুরনো ফুলের মালা ছিঁড়ে,
> কি আসে যায় তাতে!
> গলায় পরিয়ে দিব নতুন ফুলের মালা।
> রাজি যদি না হয় সে,
> চলে যাবো মালাখানি রেখে।

> আমার জীবনে যখন এসেছো তুমি এবার,
> থাকো না সাথে তুমি বলি বার বার।
> আমারে ছেড়ে যদি চলে যাও তুমি,
> কি হবে এ জীবন দিয়ে যদি একা হই আমি!
> তুমি এসে এ জীবন করিলে শুধু ধন্য,
> কিভাবে বোঝাব তা আমি যে নগন্য!

> হঠাৎ ঘুম থেকে উঠে দেখি,
> বসে আছে পাশে আমার সেই সঙ্গীনি।
> যাকে আমি আজীবন বেসেছি ভালো,
> নতুন ফুলের মালা আজ সে গলায় নিল।

> দুজনে মিলে হাতে হাত ধরে,
> নেমেছি সাগরে সাঁতার কাটিতে।
> হাসি আর খুশিতে সারাদিন ধরে,
> মনের আনন্দে কেটেছে দিনটি।
> আশাকরি এমন করে কেটে যাবে বাকি জীবনটি।

প্রবাস বাংলা ভয়েস/ঢাকা/ ৩০ মে  ২০২২ /এমএম