Menu

প্রবাস বাংলা ভয়েস ডেস্ক :: একবার ওজন বাড়লে নিয়ন্ত্রণ করা কঠিন হয়ে পড়ে। অনেকেই ওজন কমাতে বাড়িতে নিয়মিত শরীরচর্চা করেন। কেউ কেউ জিমেও যান। কিন্তু এই সব কিছুর আগে নিজের খাওয়া-দাওয়ার উপরে নজর দিতে হবে। যদি পেটে চর্বি জমতে থাকে, কিছুতেই উপকার পাওয়া না যায়, সে ক্ষেত্রে বিশেষ কিছু খাবার থেকে দূরে থাকতে হবে। যেমন-

১. প্রক্রিয়াজাত মিটহট ডগ, বেকন, সসেজসহ সব ধরনের প্রক্রিয়াজাত মাংস এড়িয়ে যেতে হবে। এগুলি সবই উচ্চ ক্যালরি সম্পন্ন খাবার। এতে স্যাচুরেটেড ফ্যাটের পরিমাণও বেশি থাকে। এ কারণে হজম করতে সমস্যা হয়। আর ফ্যাট জমার পরিমাণও বাড়তে শুরু করে।

২. অতিরিক্ত অ্যালকোহল মেদ বাড়াতে সাহায্য করে। কারণ অতিরিক্ত মাত্রায় অ্যালকোহল শরীরে গেলে মৌল বিপাকীয় হার প্রভাবিত হয়। এটি শরীরের মেদ ঝরানোর ক্ষমতা কমিয়ে দেয়। ফলে মেদ বাড়তে থাকে।

৩. প্রক্রিয়াজাত খাবার বিশেষ করে হোয়াইট ব্রেড, হোয়াইট রাইস, সিরিয়াল, স্যুপ, আলুর চিপস, বিস্কুট, কুকিজ বা এই জাতীয় খাবারের ব্যাপারে সচেতন থাকতে হবে। এসব খাবারে ফাইবার, ভিটামিন থাকে। তবে প্রচুর মাত্রায় চিনি, লবণ , তেল ও ক্যালরিও থাকে। এ কারণে এসব খাবার পরিমাণে বেশি খেলে স্বাভাবিকভাবে শরীরে ফ্যাটের পরিমাণ বাড়তে থাকে। এর পাশাপাশি কর্ন সিরাপ, সোডা, নানা ধরনের কেক খাওয়া থেকেও বিরত থাকতে হবে।

৪. প্রক্রিয়াজাত খাবারের মতো তেলেভাজা খাবারও শরীরের জন্য ক্ষতিকর। এগুলি দ্রুত হারে মেদ বাড়ায়। কারণ এই ধরনের খাবারে তেল ও ফ্যাটের পরিমাণ খুব বেশি। তাই হজমেও সমস্যা হয়। অনেক সময়ে বদহজম ও অ্যাসিডিটি দেখা যায়। আর দিনের পর দিন এই ফ্যাট জমা হলে পেটের চর্বি বাড়তে থাকে।

প্রবাস বাংলা ভয়েস/ঢাকা/ ৫ মার্চ ২০২১ /এমএম