Menu

প্রবাস বাংলা ভয়েস ডেস্ক :: রোজার বাকি আর কয়েকদিন। এর মধ্যে শুরু হয়েছে করোনাভাইরাসের সেকেন্ড ওয়েভ। অপ্রয়োজনে বাসা থেকে বের না হওয়ার নির্দেশনা এসেছে বেশ আগেই। চলছে লকডাউন। কেনাকাটা থেকে শুরু করে রোজার অন্যান্য প্রস্তুতি তাই এবার নিতে হবে সচেতনভাবে।

রোজার বাড়তি কেনাকাটা যেমন বেসন, খেজুর, ছোলা ইত্যাদিসহ অন্যান্য আনাজ কিনে ফেলুন। চেষ্টা করুন গুছিয়ে অনলাইনেই কিনে ফেলতে। সম্ভব না হলে স্বাস্থ্যবিধি মেনে বাইরে গিয়ে একবারেই কিনুন। এক্ষেত্রে অবশ্যই কেনাকাটার ফর্দ বানিয়ে নেবেন যেন কোনোকিছু বাদ পড়ে না যায়। তবে আতঙ্কে প্রয়োজনের অতিরিক্ত কিনতে যাবেন না।

রোজায় যেহেতু বাইরের ইফতার কেনা হবে না এবার, ফ্রোজেন বিভিন্ন খাবার বানিয়ে সংরক্ষণ করতে পারেন ডিপ ফ্রিজে। নাগেট, চপ, কাটলেট ইত্যাদি একবারে বেশি করে বানিয়ে রেখে দিন রোজায় ভেজে খাওয়ার জন্য।
যেহেতু নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে দোকানপাট বন্ধ হয়ে যাচ্ছে, হুট করে প্রয়োজনীয় মসলা হাতের কাছে পাওয়া যাবে না স্বাভাবিকভাবেই।

তাই মসলা কিনে গুছিয়ে রাখুন। চাইলে মসলা পেস্ট বা গুঁড়া করে রাখতে পারেন।
রোজার সময় বাড়তি কাজ করার সময় হয়ে ওঠে না। তাই জানালা-দরজার পর্দা পরিষ্কার, ফ্রিজ পরিষ্কার কিংবা বিছানার চাদর পরিষ্কারের কাজ এখনই করে ফেলুন।

ঘরে বাড়তি কোনও কেনাকাটা থাকলে সেটাও চেষ্টা করুন অনলাইনেই সেরে ফেলতে। যেমন ওভেন, ফ্রিজ, ওয়াশিং মেশিন এগুলোর প্রয়োজন হতে পারে। তবে বাড়তি জিনিস বা শখের জিনিস কেনার পেছনে টাকা খরচ না করে কেবল খুব প্রয়োজনীয় জিনিসটিই কিনুন।

প্রবাস বাংলা ভয়েস/ঢাকা/ ১২  এপ্রিল ২০২১ /এমএম